সর্বশেষঃ

মনপুরা ছাত্রদল পদ প্রত্যাশী আপ্পানের ফেসবুক ফেক আইডি প্রতারণা, ভোলা থানায় মামলা।

দিদার হোসেন:
ভোলা জেলার মনপুরা উপজেলায় মনপুরা সরকারি কলেজ ছাত্রদল পদ প্রত্যাশী আপ্পান হাওলাদের বিরুদ্ধে ফেইচবুক ফেক আইডি প্রতারনায় ভোলা সদর থানায় অভিযোগ করেছেন এক ভুক্তভোগী। বির্তকিত ছাত্রদল পদ প্রত্যাশী আপ্পান হাওলাদার স্ট্যাটাসকৃত khadija khamon mishu ফেসবুক ফেক আইডিতে পদ প্রত্যাশী আপ্পানের নারীদের সঙ্গে নানান অশ্লীল ছবি দেখা যায়।

ভূক্তভোগী মনির ভোলা সদর মডেল থানায় লিখিত অভিযোগে তুলে ধরেন, উক্ত ফেক আইডি থেকে তাকে নানা ধরনের হুমকি-ধমকি একের পর এক দিয়ে যাচ্ছেন এবং উক্ত ফেক আইডি থেকে ভূক্তভোগীর নাম প্রকাশ করেও বিভিন্ন মানুষের সাথেও প্রতারণা করে আসছেন। আরো তুলে ধরা হয় বিতর্কিত ছাত্রদল পদ প্রত্যাশী আপ্পান হাওলাদার গত ২২/০৫/২০২২ তারিখ রাত আনুমানিক ১২টা এবং ১টার দিকে (০১৭১৫৩৪০৭৬৮) নাম্বার থেকে ফেক ফেসবুক আইডিকে জড়িয়ে ভুক্তভোগীকে প্রাণনাশের হুমকি ধমকি ও বিএনপি ক্ষমতায় আসলে দেখিয়ে দেওয়ার ভয়ভীতি প্রদর্শন করেন। যার তথ্য-প্রমাণ ভোলা সদর মডেল থানায় সংযুক্ত করা হয়, জিডি নং (১২২৫)। সাইবার অপরাধ আইনে অসন্মান জনক ফেসবুক পোস্ট এবং সরকারি চাকরিজীবী কে হুমকি-ধমকি অপরাধ আইনে মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

বিষয়টি জানিয়ে ভোলা জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট (আইসিটি) নিকট আইনী পদক্ষেপ গ্রহণে অভিযোগ আনায়ন করেন ,ভুক্তভোগী শিক্ষানবিশ আইনজীবী মনির আহম্মেদ(এল এল বি)। মনির আহমেদ একজন সরকারি চাকরিজীবীও বটে।

বিষয়টি নিয়ে ভোলা সদর মডেল থানার ওসির নিকট জানতে চাইলে তিনি জানান দ্রুত তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে, অভিযুক্ত আপ্পানকে আইনের আওতায় আনা হবে।

বিষয়টি নিয়ে মনপুরা উপজেলা বিএনপি’র সভাপতির নিকট জানতে তিনি জানান ছাত্রদল পদ প্রত্যাশী আপ্পান ক্ষমতাসীন আওয়ামী পরিবারের ছত্রছায়ায়, অভিযুক্ত আপ্পানের ভগ্নিপতি মনপুরা আওয়ামীলীগ সাধারন সম্পাদক জাকির হোসেন। তার প্রভাব খাটিয়ে এ ধরনের বিতর্কিত কর্মকাণ্ড চালিয়ে যাচ্ছেন এবং অভিযুক্ত আপ্পনা নেশা করে

এদিকে বিতর্কিত অভিযুক্ত আপ্পান বিষয়ে ছাত্রদলের জেলা সভাপতির নিকট জানতে চাইলে তিনি জানান কোন সরকারি চাকরিজীবী কে হুমকি ধমকি দেওয়া সম্পূর্ণ অপরাধ, প্রমাণ পেলে অবশ্যই সাংগঠনিকভাবে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

বিষয়টি নিয়ে নুরুল ইসলাম নয়ন প্যানেল মনপুরা উপজেলা ছাত্রদলের আহবায়ক কবির হোসেন এর নিকট জানতে চাইলে তিনি জানান, আমাকে নেতা ফোন করেছিলেন, সমাধান করার জন্য। আমি অভিযুক্ত আপ্পানের বিতর্কিত পোষ্টটি ডিলিট করার জন্য নির্দেশনা প্রদান করেছি।

অভিযুক্ত আপ্পানকে উক্ত অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে অভিযুক্ত আপ্পান সাংবাদিক পরিচয় পেয়ে লাইন কেটে দেয়।

উল্লেখ্য অভিযুক্ত আপ্পান মনপুরা সরকারি কলেজে ছাত্রদল পদ প্রত্যাশী, বর্তমানে যুগ্ম আহ্বায়ক পদে রয়েছেন। তার পিতা মনপুরা বি এন পি নেতা ও সাবেক ২নং হাজীরহাট ইউনিয়ন চেয়ারম্যান আব্দুল মান্নান হাওলাদার। স্থানীয় সুত্রে জানা যায়, অভিযুক্ত বিএনপি ছাত্রদল পদ প্রত্যাশী আপ্পান তার ভগ্নিপতি আওয়ামিলীগ সাধারন সম্পাদক জাকির হোসেন মিয়ার প্রভাব খাটিয়ে নানা অপকর্ম ও বিতর্কিত কর্মকাণ্ড চালিয়ে যাচ্ছেন।

তার অপকর্ম নিয়ে আসছে বিস্তারিত…… দ্বিতীয় পর্বে

ফেসবুকে লাইক দিন