আপনার প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিতে চান? - বিস্তারিত
ঢাকা আজঃ মঙ্গলবার, ৭ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ২১শে মে, ২০২৪ ইং, ১২ই জিলক্বদ, ১৪৪৫ হিজরী
সর্বশেষঃ

বামনায় মাদক-সন্ত্রাস নির্মূলে কঠোর ভূমিকায় ওসি তুষার কুমার মন্ডল

মোঃ শাকিল আহমেদ, বামনা (বরগুনা) প্রতিনিধিঃ বর্তমানে বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় সমস্যা হচ্ছে মাদক ও সন্ত্রাস। বাংলাদেশের পুলিশ প্রশাসন সন্ত্রাস ও মাদকের বিস্তার রোধকে চ্যালেঞ্জ হিসেবে নিয়ে কাজ করে যাচ্ছে। তারই ধারাবাহিকতায়, বরগুনা জেলার বামনা উপজেলায় মাদক-সন্ত্রাস নির্মূলে কঠোর ভূমিকায় কাজ করছেন থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) তুষার কুমার মন্ডল। স্থানীয় ও জাতীয় দৈনিক বিভিন্ন পত্র-পত্রিকায় চুরি ডাকাতি সহ, সন্ত্রাস-মাদক নিয়ে অনেক রিপোর্ট ছাপা হয়েছে। তারপরেও মাদক কারবারী এবং সন্ত্রাসীরা অভিনব কায়দায় তাদের অপরাধ কর্মকান্ড চালিয়ে যাচ্ছে। কিন্তু ওসি তুষার কুমার মন্ডলের নেতৃত্বে বামনা থানা পুলিশ বিচক্ষণতার সাথে প্রতিনিয়ত মাদক বিরোধী অভিযান পরিচালনা করায় উক্ত এলাকার মাদকের স্পট, এরিয়া থেকে মাদক কারবারি,চোর, ডাকাত এবং সন্ত্রাসীরা পালাতে শুরু করেছে।
বামনা উপজেলার সুশীল সমাজের অনেকেই বলেন, বামনা থানার চৌকস পুলিশ অফিসারগণ ও পেশাদার পুলিশ সদস্যরা যদি তাদের দক্ষতা ও আন্তরিকতা কাজে লাগিয়ে কাজ করে তাহলেই আমাদের বামনা উপজেলা থেকে মাদক নির্মূল করা সম্ভব হবে। ওসি তুষার কুমার মন্ডল থানায় যোগদানের পর থেকে মাদক-সন্ত্রাস নির্মূলে দিন-রাত কাজ করে যাচ্ছেন বামনা থানার সকল পুলিশ সদস্যগণ। জনগণ ও পুলিশ মিলে একসঙ্গে কাজ করলে সমাজে অপরাধ প্রবণতা কমিয়ে আনা এবং অপরাধ রোধ করা সম্ভব হবে। সন্ত্রাস- মাদকের বিরুদ্ধে কমিউনিটি পুলিশকে কাজে লাগাতে হবে। সাথে সাথে বামনা উপজেলার বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার মানুষকে ঐক্যবদ্ধভাবে মাদক ও সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে সোচ্চার হতে হবে। তাহলেই বামনা সহ সারা দেশ থেকে মাদক-সন্ত্রাস নির্মূল করতে সহজ হবে। এ ব্যাপারে বামনা থানার অফিসার ইনচার্জ তুষার কুমার মন্ডল প্রতিবেদক কে বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর সুযোগ্য কন্যা ও ক্ষুধা-দারিদ্র মুক্ত ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার কারিগর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মাদক-সন্ত্রাস নিয়ন্ত্রণে আপোষহীন ও দৃঢ়প্রত্যয়ী।
মাদক নিয়ন্ত্রণে সরকার জিরো টলারেন্স ঘোষণা করেছেন। মাদকের আগ্রাসন থেকে যুবসমাজকে মুক্ত রাখার জন্য সরকার বদ্ধপরিকর। সমাজকে মাদকমুক্ত করার জন্য বাস্তবমুখী পরিকল্পনার আওতায় নানামুখী পদক্ষেপ সরকারি ভাবে গ্রহণ করা হয়েছে। মাদক দুনিয়াঝুড়ে মানবজাতির জন্য বিপদ হয়ে বিরাজ করছে। বাংলাদেশও এ বিপদ থেকে মুক্ত নয়। এ বিপদ থেকে জাতিকে রক্ষায় প্রধানমন্ত্রী যে অঙ্গীকারবদ্ধ ভূমিকা পালনের কথা বলেছেন তা শুধু প্রাসঙ্গিক নয়, তাৎপর্যেরও দাবিদার। তারই ধারাবাহিকতায় ওসি তুষার কুমার মন্ডল বামনা উপজেলা মাদক মুক্ত করার অঙ্গীকার নতুন প্রজন্মের সুষ্ঠু বিকাশের স্বার্থে পুরো জাতিকে মাদকের বিরুদ্ধে জয়ী হতে হবে; বিধায় এই এলাকার যুব সমাজকেও সচেতনামূলক পরামর্শ দিয়ে যাচ্ছে। তারা যেন মাদকের ভয়াল থাবা থেকে নিজেদের রক্ষা করে, নৈতিক শিক্ষা, মানবিক মূল্যবোধ ও দেশপ্রেমে উজ্জীবিত হয়ে দেশ এবং সমাজের কল্যাণে এগিয়ে আসতে পারে সেই লক্ষ্যে প্রতিনিয়ত কাজ করে যাচ্ছে।
(ওসি) তুষার কুমার মন্ডল এই থানার দায়িত্বভার গ্রহণ করেছে গত ১১.১২.২০২৩ তারিখ। তার দায়িত্ব পাওয়াে পর থেকে বামনা উপজেলাকে আগের তুলনায় অনেকাংশে মাদক ও সন্ত্রাস, দালাল মুক্ত করতে সক্ষম হয়েছে। এবং থানায় যে কোন বিষয় নিয়ে কাজ করতে কারও কোন প্রকারের তদবির, অথবা সুপারিশের প্রয়োজন হয় না। ধনী গরিব যে কোন ব্যাক্তি ওসির সাথে সরাসরি কথা বলতে পারে এবং আইন গত প্রতিকার পেতে পারে।
বামনাকে মাদক ও সন্ত্রাস মুক্ত করতে জনসচেতনতাও সর্বোচ্চ মাত্রায় বৃদ্ধি করেছে । দেশের উন্নয়ন এবং ভবিষ্যত প্রজন্মের সুষ্ঠু বিকাশের স্বার্থে পুরো জাতিকে মাদকের বিরুদ্ধে জয়ী হতে হবে বিধায় এই এলাকার যুব সমাজকেও সচেতনামূলক পরামর্শ দিয়ে যাচ্ছে। তারা যেন মাদকের ভয়াল থাবা থেকে নিজেদের রক্ষা করে, নৈতিক শিক্ষা, মানবিক মূল্যবোধ ও দেশপ্রেমে উজ্জীবিত হয়ে দেশ এবং সমাজের কল্যাণে এগিয়ে আসতে পারে সেই লক্ষ্যে প্রতিনিয়ত কাজ করে যাচ্ছে। এবং থানা এলাকায় সকল কসাইদের ডেকে চোরাই গবাদি পশু মাংস বিক্রি বন্ধ করার জন্য পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। যার পর থেকে থানা এলাকায় গবাদিপশু পশু চুরি নিয়ন্ত্রণে এসেছে। বামনা থানা এলাকায় যাদের বিল্ডিং বসত গড় আছে সেখানে সিসিটিভি স্থাপনের জন্য উদ্যোগ গ্রহন করেছেন যা খুব শিগ্রই বাস্তবায়ন হতে যাচ্ছে।
থানা ভবন অত্যান্ত ঝুকিপূর্ন ছিল যা সম্পূর্ণ নিজের প্রচেষ্টায় নতুন অস্থায়ী অফিস নির্মান করেছেন। দীর্ঘদিন একই অবস্থায় চলতে থাকলেও ইতিপূর্বে অন্য কোন ওসি এধরণের পদক্ষেপ নেয় নিই।

ফেসবুকে লাইক দিন