ভারত সরকারের এ্যাম্বুলেন্স উপহার পেলো ভোলা পৌরসভা

ভোলা পৌরসভাকে অ্যাম্বুলেন্স উপহার দিয়েছে ভারত। এ সময় ভারতীয় সহকারী হাইকমিশনার (খুলনা) রাজেশ কুমার রায়না বলেন, ‘আমরা যে অ্যাম্বুলেন্সটি উপহার দিলাম তাতে অত্যাধুনিক জীবন রক্ষাকারী যন্ত্রপাতি রয়েছে। এটি রোগীদের জরুরি সেবা ও ট্রমা লাইফ সাপোর্ট প্রদানে সাহায্য করবে। ভোলা পৌরসভার ভবন চত্বরে শনিবার বিকাল ৩ টার সময় ভারতীয় সহকারী হাইকমিশনার রাজেশ কুমার রায়না পৌর মেয়র মনিরুজ্জামান মনিরের কাছে অ্যাম্বুলেন্সটির চাবি হস্তান্তর করেন।
এ সময় পৌর মেয়র মনিরুজ্জামান বলেন, বছরের শুরুতে বন্ধুপ্রতিম রাষ্ট্রের কাছ থেকে উপহার পাওয়া নিঃসন্দেহে সৌভাগ্যের ব্যাপার। এ ধরনের উপহারে আমরা আনন্দিত। তিনি আরো বলেন, আমার নেতা জীবন্ত কিংবদন্তী তোফায়েল আহমেদ এমপি মহোদয়ের প্রচেষ্টায় এটা সম্ভব হয়েছে। জীবন রক্ষাকারী এই এ্যাম্বুলেন্সটি পৌরবাসীকে প্রি-সার্ভিস দিবে এবং পৌরবাসীর জন্য হট লাইন চালু থাকবে।রাজেশ কুমার রায়না বলেন, আমার কূটনৈতিক জীবনে খুলনায় বেশ সময় কাটিয়েছি। কর্মজীবনের সময়টা বেশ আনন্দে কেটেছে। ভোলার অধিবাসীরা খুব অতিথিপরায়ণ। তিনি আরো বলেন, তোফায়েল আহমেদ এমপি বাংলাদেশের বেশ জনপ্রিয় একজন সাংসদ এবং দেশের বাহিরেও তার বেশ সুনাম রয়েছেন। আমি তার জন্মস্থান দেখার ও আসতে পেরে নিজেকে ভাগ্যবান মনে করেছি।সহকারী হাই কমিশনার বলেন, প্রতিবেশী দেশ হিসেবে বর্তমানে বাংলাদেশের সামাজিক ও অর্থনৈতিক উন্নতিতে ভারত সরকার আনন্দিত। আমরা যে অ্যাম্বুলেন্সটি উপহার দিলাম তাতে অত্যাধুনিক জীবন রক্ষাকারী যন্ত্রপাতি রয়েছে। এটি রোগীদের জরুরি সেবা ও ট্রমা লাইফ সাপোর্ট প্রদানে সাহায্য করবে। আমাকে ভোলা জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও জেলা আ’লীগের সাধারন সম্পাদক আব্দুল মমিন টুলু চরফ্যাশনবাসীর জন্য ও আরেকটি এ্যামবুলেন্স দাবি করেছে সেটা আমাদের বিবেচনায় আছে আমরা বিষয়টি দেখবো।এ সময় প্রধান অতিথি হিসেবে টেলিকনফারেন্সে সহকারি হাই কমিশনারের সাথে কথা বলেন সাবেক বাণিজ্য মন্ত্রী, ভোলা-১ আসনের এমপি আ’লীগের উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্য তোফায়েল আহমেদ। উদ্বোধক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আব্দুল মমিন টুলু।বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, স্থানীয় সরকার শাখার উপপরিচালক রাজিব আহমেদ, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর) আব্বাস উদ্দিন। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন জেলা আ’লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এনামুল হক আরজু, জেলা আ’লীগের সাংগঠনিক সফিকুল ইসলাম, প্যানেল মেয়র সালাউদ্দিন লিংকন, ভোলার প্রবীণ সাংবাদিক এম এ তাহের, বাংলারকণ্ঠ’র সম্পাদক এম হাবিবুর রহমান, আরটিভি প্রতিনিধি অমিতাভ রায় অপু প্রমূখ।উল্লেখ্য, ২০২১ সালে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি’র বাংলাদেশ সফরের সময় ১১৯টি বিশেষায়িত অত্যাধুনিক অ্যাম্বুলেন্স উপহারের কথা বলেছিলেন, এটা তারই একটি অংশ।

ফেসবুকে লাইক দিন