আপনার প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিতে চান? - বিস্তারিত
ঢাকা আজঃ মঙ্গলবার, ৭ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ২১শে মে, ২০২৪ ইং, ১২ই জিলক্বদ, ১৪৪৫ হিজরী
সর্বশেষঃ

বামনায় বৃষ্টির জন্য ইসতিকার নামাজ আদায়

মোঃ শাকিল আহমেদ, বামনা (বরগুনা) প্রতিনিধিঃ তীব্র তাপদাহের সঙ্গে বইছে গরম বাতাস। প্রচণ্ড গরম, কাঠফাটা রোদে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে জনজীবন। একের পর এক জারি করা হচ্ছে হিট অ্যালার্ট। এমন পরিস্থিতি থেকে মুক্তি পেতে বরগুনার বামনায় বৃষ্টির জন্য বিশেষ নামাজ (সালাতুল ইসতিসকা) আদায় করা হয়েছে।
বৃহস্পতিবার (২৫ এপ্রিল) সকাল ৯ ঘটিকার সময়, বামনা সরকারি ডিগ্রি কলেজ মাঠ প্রাঙ্গনে মহান আল্লাহর দরবারে বৃষ্টির প্রার্থনার জন্য ইসতিকার নামাজ অনুষ্ঠিত হয়েছে। নামাজে ইমামতি ও দোয়া মোনাজাত পরিচালনা করেন হযরত হাফেজ মাওলানা আনিসুর রহমান সাহেব, ইমাম ও খতিব বামনা সদর জামে মসজিদ। এসময় বামনা উপজেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে নামাজ পড়তে আসেন মুসল্লিরা। এ সময় মুসল্লিরা অঝোরে চোখের পানি ছেড়ে দিয়ে তওবা ও ক্ষমা প্রার্থনা করেন।
নামাজ শেষে অনাবৃষ্টি এবং গরম থেকে মুক্তির জন্য মহান আল্লাহর রহমত কামনা করে মোনাজাত করা হয়। এ সময় মুসল্লিরা অঝরে চোখের পানি ছেড়ে দিয়ে তওবা ও ক্ষমা প্রার্থনা করেন। নামাজে অংশ নেওয়া মুসল্লিরা জানান, প্রচণ্ড তাবদাহ ও অনাবৃষ্টির কারণে শুকিয়ে যাচ্ছে মাঠঘাট কৃষিজমি। তীব্র খরায় ফলস উৎপাদন নিয়ে দুশ্চিন্তায় পড়েছেন কৃষক। গরমে অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছেন মানুষ। একের পর এক জারি করা হচ্ছে হিট অ্যালার্ট। হিট স্ট্রোকে মারা যাচ্ছে মানুষ। এই অবস্থায় বৃষ্টি হওয়াটা খুব দরকার। বৃষ্টি হলে গরম কমে যাবে। আল্লাহ তা’আলা সালাতের মাধ্যমে বৃষ্টি বা পানি চাইতে বলেছেন। তাই আমরা সবাই একত্রে নামাজ আদায় করেছি।
নামাজে অংশ নেওয়া বামনা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ সাইতুল ইসলাম লিটু মৃধা বলেন, গত কয়েক দিনের অসহনীয় গরমে ওষ্ঠাগত প্রাণ। তীব্র তাপপ্রবাহে জনজীবন বিপর্যস্ত হয়ে উঠছে। কাঠফাটা রোদ, প্রচণ্ড গরমে সীমাহীন দুর্ভোগ নিয়ে চলছে জীবন। মাঠের ফসল শুকিয়ে যাচ্ছে। এমন পরিস্থিতিতে মহান আল্লাহর কাছে বৃষ্টি চেয়ে নামাজ আদায় ও মোনাজাত করা ছাড়া মুমিনদের কোনো উপায় নাই। ধর্মমতে একে ‘সালাতুল ইসতিসকা’ বলা হয়। বামনাবাসী আজকে নামাজের মাধ্যমে আল্লাহর কাছে বৃষ্টির প্রার্থনা করেছেন।

ফেসবুকে লাইক দিন