আপনার প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিতে চান? - বিস্তারিত
ঢাকা আজঃ শনিবার, ৩০শে চৈত্র, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ, ১৩ই এপ্রিল, ২০২৪ ইং, ৩রা শাওয়াল, ১৪৪৫ হিজরী
সর্বশেষঃ

মোংলা বন্দরের সক্ষমত বৃদ্ধির জন্য রেলপথ নির্মাণ করা হয়েছে-রেলমন্ত্রী

মোংলা প্রতিনিধিঃ আগামী ৯ নভেম্বর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মোংলা-খুলনা রেলপথ উদ্বোধন করবেন বলে জানিয়েছেন রেলমন্ত্রী মো. নূরুল ইসলাম সুজন। তিনি বলেছেন, ‘মূলত মোংলা সমুদ্রবন্দরের সক্ষমতা বৃদ্ধির জন্য মোংলা-খুলনা রেলপথ নির্মাণ করা হয়েছে। রেল যোগাযোগ স্থাপনের ফলে এই বন্দরের সক্ষমতা বহুগুণ বেড়ে গেছে। এতে প্রতিবেশী দেশ ভারত, নেপাল ও ভুটান এই রেলপথ দিয়ে সহজেই মোংলা বন্দর ব্যবহার করতে পারবে। আগে সড়ক ও নদী পথে বন্দরের পণ্য পরিবহন করা হতো। রেলপথে পণ্য পরিবহনে খরচ কম, এর সুবিধা পণ্যের ওপর যোগ হবে। ফলে এর সুফল পাবে জনগণ।
শনিবার (১৪ অক্টোবর) বিকালে এই রেলপথ পরিদর্শন শেষে মোংলা বন্দর রেলস্টেশনে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন তিনি। এ সময় তার সঙ্গে ছিলেন রেলপথ মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা, রেলপথ প্রকল্প পরিচালক, সংশ্লিষ্ট ঠিকাদার প্রতিষ্ঠানসহ স্থানীয় প্রশাসনের কর্মকর্তারা।
এই রেলপথের রূপসার ওপারের দুই থেকে আড়াই কিলোমিটারের কিছু অংশের লিংকেজ এখনও সম্পন্ন হয়নি জানিয়ে রেলমন্ত্রী বলেন, ‘আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে এই লিংকেজ সম্পন্ন হয়ে গেলে রেলপথটি পুরোপুরি চলাচলের প্রস্তুত হয়ে যাবে। এছাড়া দুই-তিনটি ব্রিজে ত্রুটি দেখা দিয়েছিল, তা ইতোমধ্যে মেরামত করা হয়েছে। পুরো রেলপথ ত্রুটিমুক্ত করে উদ্বোধনের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আগামী ৯ নভেম্বর এই রেলপথ উদ্বোধন করবেন।
প্রসঙ্গত, মোংলা-খুলনা রেললাইন প্রকল্পের নির্মাণ কাজ শুরু হয়েছিল ২০১৬ সালের সেপ্টেম্বরে। ২০২২ সালের ডিসেম্বরে এই প্রকল্প বাস্তবায়নের কথা ছিল। কিন্তু করোনাসহ নানা কারণে কাজ শেষ না হওয়ায় ২০২৩ সালের জুলাই পর্যন্ত মেয়াদ বৃদ্ধি করা হয়। পরবর্তীতে আরও তিন মাসের সময় বৃদ্ধি করা হয়। সেই অনুযায়ী চলতি অক্টোবর রেলপথ উদ্বোধনের কথা থাকলেও পুরোপুরি ক্রুটিমুক্ত করেই আগামী ৯ নভেম্বর উদ্বোধন হতে যাচ্ছে।

ফেসবুকে লাইক দিন