আপনার প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিতে চান? - বিস্তারিত
ঢাকা আজঃ বুধবার, ১৬ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ, ২৮শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ ইং, ১৬ই শাবান, ১৪৪৫ হিজরী
সর্বশেষঃ

কচি তালের শাঁসের উপকারিতা

ভোলার খবর ডেস্ক: গ্রীষ্মের তপ্ত আবহাওয়ায় রসালো তালশাঁস জনপ্রিয় একটি খাবার। অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট, ভিটামিন, ফাইবার এবং খনিজ উপাদান মেলে এতে। এছাড়া তালশাঁসের বেশির ভাগ অংশই জলীয়। ফলে শরীর দ্রুত পানি হারালে তা পূরণ করতে সহায়তা করে তালশাঁস। জেনে নিন কচি তালশাঁসের পুষ্টিগুণ সম্পর্কে ইলেক্ট্রোলাইট ভারসাম্য ঠিক রাখে উচ্চমাত্রায় সোডিয়াম এবং পটাসিয়াম মেলে তালের শাঁসে, যা শরীরের ইলেক্ট্রোলাইট ভারসাম্য বজায় রাখতে সহায়তা করে। ফলে গরমের ক্লান্তি দূর হয়।
পানিশূন্যতা রোধ করে: তালশাঁসের প্রায় পুরোটাই পানি। গরমে শরীরের বাড়তি পানির চাহিদা মেটাতে সাহায্য করে এই ফল। তাই পানি ও পানি জাতীয় খাবারের পাশাপাশি সুমিষ্ট এই ফল খান গ্রীষ্মের প্রচণ্ড গরমে।
লিভার ভালো রাখে: কচি তালের শাঁস লিভারের সমস্যা দূর করতে সাহায্য করে। এটি লিভার থেকে ক্ষতিকর ও দূষিত পদার্থ বের করে দেয়।
রক্তশূন্যতা দূর করে: আয়রন পাওয়া যায় এই ফলে। নিয়মিত খেলে তাই দূর হয়ে অ্যানিমিয়া বা রক্তশূন্যতার মতো সমস্যা।
কোষ্ঠকাঠিন্য দূর করে: কোষ্ঠকাঠিন্য ও হজমের গণ্ডগোল দূর করতে বেশ কার্যকরী তালশাঁস। অন্ত্রের স্বাস্থ্য ভালো রাখে এই ফল।
অন্যান্য উপকারিতা:
তালশাঁসে রয়েছে ভিটামিন এ, যা দৃষ্টিশক্তিকে প্রখর করতে সাহায্য করে।
শরীরের জন্য উপকারী ভিটামিন সি ও বি কমপ্লেক্স মেলে এতে।
ত্বক শুষ্ক হয়ে যাওয়া, চুল পড়া ইত্যাদি রোধ করতে সাহায্য করে।
তালের শাঁসে থাকা ক্যালসিয়াম হাঁড় গঠনে দারুণ ভূমিকা রাখে।
তালশাঁস শরীরের কোষের ক্ষয় প্রতিরোধ করে।
(হিন্দুস্তান টাইমস ও হেলথ লাইন)

ফেসবুকে লাইক দিন