লিটন কেন বাংলাদেশ দলে!! :ওয়াসিম আকরাম

খেলা ডেস্ক

ফর্মটা ভালো যাচ্ছে না লিটন দাসের। বিশ্বকাপে এখন পর্যন্ত কোনো বড় ইনিংস খেলতে পারেননি। ওদিকে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সর্বশেষ ম্যাচে গুরুত্বপূর্ণ সময়ে দুটি সহজ ক্যাচ ফেলেছেন, যে ক্যাচগুলো হাতে আটকে থাকলেই বাংলাদেশ হয়তো জয় দিয়ে সুপার টুয়েলভ পর্ব শুরু করতে পারত।

এমন অবস্থায় দলে লিটন দাসের অবস্থান নিয়ে প্রশ্ন ওঠাটাই স্বাভাবিক। কিংবদন্তি ওয়াসিম আকরামও লিটনকে নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন। এত বাজে ফর্মে থাকা লিটন কীভাবে বাংলাদেশ দলে সুযোগ পাচ্ছেন, সেটা মাথায় ঢুকছে না বাঁহাতি পেস বোলিংয়ের শেষ কথার।
ওয়াসিম আকরাম বাংলাদেশ দলে লিটনের জায়গা দেখছেন না,
বাংলাদেশ দল বিশ্বকাপে তিন ওপেনার নিয়েছে। এর মধ্যে প্রথম ম্যাচে স্কটল্যান্ডের সঙ্গে ব্যর্থতায় বাদ দেওয়া হয়েছে সৌম্য সরকারকে। তাঁর জায়গায় দলে ঢুকে মোহাম্মদ নাঈম দুটি পঞ্চাশোর্ধ্ব ইনিংস খেলেছেন। তাঁর ব্যাটিং টি-টোয়েন্টিতে আদর্শ কি না, এ নিয়ে বিতর্ক হতে পারে; তবে এক প্রান্ত ধরে রাখার কাজটা ভালোই করছেন নাঈম।

একজন ওপেনার যখন এক প্রান্ত ধরে রাখেন, অন্য প্রান্তে রানের গতি বাড়ানোর দায়িত্বটা বাড়ে। সে কাজ লিটন ভালোই পারেন। কিন্তু লিটন নিজেই যাচ্ছেন চরম ফর্মহীনতার মধ্য দিয়ে। বিশ্বকাপের প্রস্তুতি পর্বে ওমান একাদশের বিরুদ্ধে ৫৩ রান করে ফর্মে ফেরার ইঙ্গিত দিয়েছিলেন। কিন্তু পরের দুই প্রস্তুতি ম্যাচেই আবার ব্যর্থ। শ্রীলঙ্কা ও আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচে ১ রান করেছেন।

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ম্যাচে দুটি সহজ ক্যাচ নিতে পারেননি লিটন
বিশ্বকাপেও ফর্মের দেখা পাননি লিটন। চার ম্যাচে করেছেন মাত্র ৫৬ রান। এর মধ্যেই আবার শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ফেলেছেন দুটি ক্যাচ। গত পরশু বাংলাদেশ ও শ্রীলঙ্কা ম্যাচ নিয়ে বিশ্লেষণ করতে গিয়ে লিটনকে নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন ওয়াসিম আকরাম। এ স্পোর্টস টিভির অনুষ্ঠান ‘দ্য প্যাভিলিয়ন’–এ কথা বলছিলেন ওয়াসিম আকরাম, ওয়াকার ইউনিস, মিসবাহ-উল-হক ও ওয়াহাব রিয়াজ। বাংলাদেশের হারের পেছনে লিটনের ওই ক্যাচ ফেলার দায়ই দেখছেন ওয়াসিম।

আত্মবিশ্বাস হারিয়ে ফেলা এক ক্রিকেটারকে কেন দলে রাখা হচ্ছে, এ নিয়েও প্রশ্ন রেখেছেন কিংবদন্তি, ‘বাছাইপর্বের (প্রথম পর্ব) শুরু থেকেই মনে হচ্ছে লিটন দাস ঘুমিয়ে আছে। সে বাছাইপর্বে রান পায়নি, ভালো ফিল্ডিং করছে না। আমি নিশ্চিত নই, সে কেন এখনো দলে আছে।’

এ বছর টি-টোয়েন্টিতে খুব বাজে ফর্মের মধ্য দিয়ে যাচ্ছেন লিটন। ১৩টি আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেছেন। এর মধ্যে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে নামা হয়নি তাঁর। অন্য ১২ ম্যাচে ১৩১ রান করেছেন। ১০.৯১ গড়ে করা এই রান এসেছে মাত্র ১০০.৭৬ স্ট্রাইক রেটে। এ বছর টি-টোয়েন্টিতে লিটনের কোনো অর্ধশতক নেই। সর্বোচ্চ ৩৩ রান করেছিলেন নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে।

২৪ অক্টোবর বাংলাদেশের হার যে ওয়াসিমকে অবাক করেছে, সেটাও বোঝা গেছে তাঁর বিশ্লেষণে, ‘আমার তো মনে হয়েছিল বাংলাদেশ ভালোই করেছে। ওরা যখন ১৭০–এর ওপর রান করেছে, সেটাও এই উইকেটে। শারজার উইকেট আমরা যা দেখেছি, এখানে রান কম হয়। আইপিএলেও কম রান হয়েছে। শ্রীলঙ্কার চার উইকেটও ফেলে দিয়েছিল। ৮০ রানে ৪ জনকে আউট হয়ে যাওয়ার পরও আসালাঙ্কা (চারিত) ও রাজাপক্ষে (ভানুকা) থামলই না। তারা মারতেই থাকল। ওরা যদি একটু থামত, তাহলে চাপ বাড়ত। কিন্তু ওরা প্রতিপক্ষের ওপর চাপ সৃষ্টি করল। অসাধারণ ইনিংস!’

ফেসবুকে লাইক দিন